সমন্বিত নয়, গুচ্ছ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি পরীক্ষা

সমন্বিত ভর্তি পরীক্ষা নয়, গুচ্ছ পদ্ধতিতে দেশের পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর ভর্তি পরীক্ষা চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি)।

বুধবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে ইউজিসিতে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যদের সঙ্গে মতবিনিময় সভা শেষে ইউজিসি চেয়ারম্যান অধ্যাপক কাজী শহীদুল্লাহ এ সিদ্ধান্তের কথা জানান।

অধ্যাপক কাজী শহীদুল্লাহ বলেন, সমমনা বিশ্ববিদ্যালয়গুলোকে চারটি গুচ্ছে ভাগ করে এই ভর্তি পরীক্ষা নেওয়া হবে। এর মধ্যে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোকে একটি গুচ্ছ করে, প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর জন্য একটি, কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর জন্য একটি এবং সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর জন্য আরেকটি গুচ্ছ করে এই ভর্তি পরীক্ষা হবে।

গত ১১ ফেব্রুয়ারি উপাচার্যদের সঙ্গে বৈঠক করেন ইউজিসি চেয়ারম্যান। বৈঠকে কেন্দ্রীয়ভাবে ভর্তি পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল বলে জানায় ইউজিসি। এ লক্ষ্যে একটি খসড়া নীতিমালাও তৈরি করা হয়। তবে ইউজিসি জানিয়েছিল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট), রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ওই বৈঠকের সিদ্ধান্ত স্পষ্ট সম্মতি দেয়নি। পরে ওই পাঁচ বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ভর্তি পরীক্ষায় অংশ না নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়।

এই পরিস্থিতিতে বুধবার বিকালে উপাচার্যদের নিয়ে বৈঠকে বসে ইউজিসি। বৈঠকে আলোচনার পর বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর ক্যাটাগরি অনুযায়ী গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তির সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, নতুন সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ৭ টি কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়, ১১টা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্বদ্যিালয়, ৫ টি প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়, ৩ টি বিশেষায়িত বিশ্ববিদ্যালয় ও অন্যান্য সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয়গুলো নিয়ে গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। সাধারণ বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর বিজ্ঞান, বাণিজ্য ও মানবিক বিষয়ে আলাদা পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

বর্তমানে দেশে ৪৬টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় চালু রয়েছে। এর মধ্যে ৩৯টিতে স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষে ছাত্র ভর্তি করা হচ্ছে। এগুলোতে আসন আছে প্রায় ৬০ হাজার।

Leave a Reply

Your email address will not be published.