ভারতের নাগরিকত্ব আইন: উত্তর প্রদেশে সহিংসতায় নিহত ১৫

সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের প্রতিবাদে বিক্ষোভে উত্তাল গোটা ভারত। উত্তর প্রদেশে ছড়িয়ে পড়া বিক্ষোভ-সহিংসতায় অন্তত ১৫ জন নিহত হয়েছে।

শনিবার রাজ্যটির কানপুরে পুলিশ ও প্রতিবাদকারীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সংঘর্ষের ঘটনার একটি ভিডিও পাওয়া গেছে, তাতে কানপুরের এক পুলিশ সদস্যকে তার রিভলবার দিয়ে গুলি করতে দেখা গেছে।

উত্তর প্রদেশের পুলিশের দাবি করছে যারা মারা গেছে তাদের কেউ পুলিশের গুলিতে নিহত হয়নি। তাদের এ দাবির মধ্যেই এই ভিডিওটি সামনে এসেছে।

এনডিটিভি জানিয়েছে, আলোচিত ভিডিওটিতে নিরাপত্তা জ্যাকেট ও হেলমেট পরা পুলিশের ওই সদস্যকে যেদিকে সংঘর্ষ হচ্ছিল সেদিকে রিভলবার ও লাঠি হাতে হেঁটে যেতে দেখা গেছে। তাকে হেঁটে একপাশে গিয়ে গুলি করতেও দেখা যায়।

এদিকে উত্তর প্রদেশের পুলিশ প্রধান ওপি সিং দাবি করেছেন, বৃহস্পতিবার থেকে উত্তর প্রদেশজুড়ে প্রতিবাদ ছড়িয়ে পড়ার পর এ পর্যন্ত পুলিশের গুলিতে কেউ নিহত হয়নি।

ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার বলছে, বাংলাদেশ, আফগানিস্তান ও পাকিস্তানে নির্যাতিত অমুসলিমদের সুরক্ষা নিশ্চিত করতেই মূলত নাগরিকত্ব আইনটি সংশোধন করা হয়েছে।

সমালোচকরা এটিকে ভারতের ধর্মনিরপেক্ষ সংবিধানের লঙ্ঘন বলে অভিহিত করেছেন। সমালোচকদের ভাষ্য, সংখ্যালঘু মুসলমানদের আরও কোণঠাসা করতে বিজেপি ‘হিন্দুত্ববাদী এজেন্ডা’বাস্তবায়নই এ আইনের লক্ষ্য।

Leave a Reply

Your email address will not be published.