গাজায় ইসরায়েলের রকেট ও বিমান হামলা অব্যাহত

গাজা লক্ষ্য করে একের প এক রকেট হামলা এবং বিমান হামলা চলাচ্ছে ইসরায়েল। ইতোমধ্যেই গাজায় হামাসের একটি দপ্তর এবং একটি রকেট লঞ্চিং প্যাড ধ্বংস করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

যদিও এখনো পর্যন্ত হতাহতের কোনো খবর পাওয়া যায়নি।

ইসরায়েলের সেনা বলছে, হামলা অব্যাহত থাকবে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে এসব কথা বলা হয়।

ইসরায়েলের আক্রমণ নিয়ে হামাস অবশ্য এখনো পর্যন্ত কোনো মন্তব্য করেনি। বিবৃতিও প্রকাশ করা হয়নি। মৃত্যুর খবরও পাওয়া যায়নি।

তবে হামাসও পাল্টা রকেট হামলা চালানোর প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে গাজায় অবস্থিত সাংবাদিকদের খবর।

গত মাসেই কয়েক সপ্তাহ ধরে হামাস এবং ইসরায়েলের সেনার তীব্র লড়াই হয়েছে। শেষ পর্যন্ত মিশরের মধ্যস্থতায় দুই পক্ষ যুদ্ধবিরতির সিদ্ধান্তে পৌঁছায়। দুই সপ্তাহ কাটতে না কাটতেই ফের তারা সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ল।

নতুন করে ঘটনার সূত্রপাত বৃহস্পতিবার সকালে।

ইসরায়েলের অভিযোগ, হামাস আগুনের গোলা ভর্তি বেলুন ইসরায়েল লক্ষ্য করে পাঠিয়েছিল। এর আগেও একাধিক বার হামাস এ কাজ করেছে। আগুনের গোলা ভরা বেলুন ইসরায়েলের খেত জ্বালিয়ে দিয়েছে। আগুন লাগিয়ে দিয়েছে বহু বাড়িতে। এবারও তেমন বেলুন দেখে পাল্টা আঘাত হানে ইসরায়েল। গাজা স্ট্রিপ লক্ষ্য করে দিনভর একের পর এক রকেট এবং বিমান হানা চালানো হয়।

বিশেষজ্ঞদের আশঙ্কা, নতুন করে এই সংঘাত ফের যুদ্ধের আবহের দিকে যেতে পারে। হামাস পাল্টা আক্রমণ শানাতে শুরু করলে ইসরায়েলের আক্রমণও আরো বাড়বে। ফের সাধারণ মানুষের মৃত্যুর আশঙ্কা তৈরি হবে। ফলে নতুন করে যুদ্ধবিরতির প্রস্তুতি নেওয়া প্রয়োজন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.