কমরেড মনজু ৬ মাস দায়িত্ব থেকে বিরত -সিপিবি

বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)’র উপদেষ্টা কমরেড মনজুরুল আহসান খানকে ৬ (ছয়) মাসের জন্য উপদেষ্টাসহ পার্টির অন্যান্য দায়িত্ব থেকে বিরত রাখার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে।

গতকাল কমিউনিস্ট পার্টির এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।   

বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)’র উপদেষ্টা কমরেড মনজুরুল আহসান খান কর্তৃক একটি দৈনিক পত্রিকায় লিখিত প্রবন্ধের একটি অংশ ও অন্য একটি দৈনিক পত্রিকায় প্রদত্ত সাক্ষাতকারের বক্তব্য বর্তমান সরকার সম্পর্কে পার্টির দৃষ্টিভঙ্গি, মূল্যায়ন ও রাজনৈতিক অবস্থানের সাথে সাংঘর্ষিক হওয়ায় গত ৫ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত প্রেসিডিয়াম সভায় এ সিদ্ধান্ত গৃহিত হয় বলে বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি)’র সভাপতি কমরেড মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম ও সাধারণ সম্পাদক কমরেড মোহাম্মদ শাহ আলম এক বিবৃতিতে জানিয়েছিলেন যে, “সম্প্রতি একটি দৈনিক পত্রিকায় সিপিবির সাবেক সভাপতি ও কেন্দ্রীয় কমিটির উপদেষ্টা কমরেড মনজুরুল আহসান খানের নামে প্রকাশিত একটি প্রবন্ধের একটি অংশের একটি প্যারায় এবং আরেকটি দৈনিক পত্রিকায় প্রকাশিত সাক্ষাৎকারে বর্তমান সরকার সম্পর্কে যে দৃষ্টিভঙ্গি ও মূল্যায়ন প্রকাশিত হয়েছে, তা সরকার সম্পর্কে সিপিবির দৃষ্টিভঙ্গি ও মূল্যায়ন নয়”।   

“প্রবন্ধ ও সাক্ষাৎকারে প্রকাশিত এই বক্তব্য বরং সরকার সম্পর্কে সিপিবির নীতি, দৃষ্টিভঙ্গি ও রাজনৈতিক অবস্থানের সঙ্গে সাংঘর্ষিক” –বলেও জানিয়েছেন নেতৃবৃন্দ।

নেতৃবৃন্দ স্পষ্ট করে জানান, “পার্টি-কংগ্রেসে গৃহিত রাজনৈতিক লাইন ধরেই সিপিবি অগ্রসর হচ্ছে এবং হবে। ‘নৈশকালীন ভোটের’ অনির্বাচিত অবৈধ সরকারের বিরুদ্ধে সিপিবি গণ-আন্দোলন গড়ে তোলার সর্বাত্মক প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছে এবং রাখবে। কর্তৃত্ববাদী সরকারের বিরুদ্ধে লড়াই চালানোর পাশাপাশি সিপিবি দ্বি-দলীয় মেরুকরণের বাইরে বাম-গণতান্ত্রিক বিকল্প গড়ে তুলতে সচেষ্ট রয়েছে এবং থাকবে”।